১০ হাজার টাকায় ২৫ টি ব্যবসার আইডিয়া, আজই শুরু করুন

ব্যবসা কি

জানতে চান ১০ হাজার টাকায় ২৫ টি ব্যবসার আইডিয়া, তবে তার আগে জেনে নিন ব্যবসা হচ্ছে একটি প্রক্রিয়া যেখানে মুনাফা অর্জনের জন্য পণ্য দ্রব্য ও সেবা কর্মের উৎপাদন বা অভাব পূরণের লক্ষ্যে বন্টন বা বন্টনের সহায়ক কার্যাবলী করা হয়। সহজ কথায় মুনাফা অর্জনের জন্য পণ্যদ্রব্য বা সেবা কর্মের বিনিময় বা এ সংক্রান্ত কাজে ব্যস্ত থাকাই ব্যবসায় বলে।

“ব্যবসায়” শব্দের আক্ষরিক অর্থ হচ্ছে “ব্যস্ত থাকা” অর্থাৎ হয় ব্যক্তিগতভাবে অথবা সমষ্টিগত ভাবে বাণিজ্যিক ভাবে, সমর্থনযোগ্য ও লাভজনক কাজে ব্যস্ত থাকা। অর্থাৎ মুনাফা অর্জনের জন্য ব্যক্তিগতভাবে বা সমষ্টিগতভাবে  কোন প্রতিষ্ঠান বা ব্যক্তি যে সকল কার্যাদি সম্পন্ন করে তাকে ব্যবসায় বলে। তবে মনে রাখা দরকার ব্যবসায়ের মূল উদ্দেশ্য হচ্ছে মুনাফা অর্জন করা। ব্যবসা একটি ব্যক্তি কোম্পানি সংস্থা বা সম্প্রদায়ের মাধ্যমে হতে পারে, ব্যবসা সাধারণত সামাজিক আর্থিক অর্থনৈতিক এবং পরিবেশগত দিক থেকেও গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে।

তবে যেকোনো ব্যবসা শুরু করলে লাভ বা মুনাফা করাটা সহজ নয়। ব্যবসা শুরু করার আগে ব্যবসা সম্পর্কে জানতে হবে বুঝতে হবে। এবং ব্যবসার সাথে মুনাফা অর্জন ও ইনভেস্টমেন্ট বা বিনিয়োগ খুব গুরুত্বপূর্ণ বিষয়। এ বিষয়ে আজকে আমরা বিস্তারিত আলোচনা করব। আসুন আমরা জেনে নেই খুব কম টাকায় যে ব্যবসা গুলো মুনাফা অর্জন করা সহজ। আজকে আলোচনা করব মাত্র ১০ হাজার টাকায় ২৫ টি ব্যবসার আইডিয়া, যে ব্যবসাগুলো শুরু করার জন্য খুব বেশি পূর্ব প্রস্তুতির প্রয়োজন হবে না।

১০ হাজার টাকায় ২৫ টি ছোট ব্যবসার আইডিয়া

আমি আপনার জন্য বেশ কিছু আইডিয়া শেয়ার করব যেগুলো সাধারণত কম টাকায় শুরু করা যায়। আসুন জেনে নিই ১০ হাজার টাকায় ২৫ টি ব্যবসার আইডিয়া

১. ফুলের বিপণি

বিভিন্ন মৌসুমে বাংলাদেশের ফুলের চাহিদা বেড়ে যায় বিশেষ করে বিভিন্ন অনুষ্ঠানে। আপনি খুব কম টাকায় ছোট আকারে ফুলের দোকান করতে পারেন। এমনকি পাইকারি দামে ফুল আপনার দোকানে দিয়ে যাবে। আপনাকে যেটা করতে হবে ফুলগুলোকে মাল আকারে বুকেট বা প্যাকেট আকারে সাজিয়ে বিক্রি করতে হবে। এছাড়া গাড়ি গিয়ে অনুষ্ঠান সাজিয়ে বেশ মুনাফা অর্থ অর্জন করা যায়।

২. হ্যান্ডমেড পণ্য

আপনার যদি হাতে পণ্য তৈরি করার দক্ষতা থাকে তাহলে আপনি সে পণ্যগুলোকে অনলাইনে বা বাজারে বিক্রি করতে পারেন। বিশেষ করে এখন আড়ং বা এ ধরনের প্রতিষ্ঠান হাতে তৈরি পণ্য ক্রয় করে থাকে।

৩. বাচ্চাদের জন্য হোমমেড খাবার
আপনার যদি রান্নার বা খাবার তৈরির দক্ষতা থাকে তাহলে আপনি বিভিন্ন অফিস টিফিনে খাবার সরবরাহ করতে পারেন। কারণ বর্তমানে স্বাস্থ্যগত বিষয়ে বিবেচনায় অনেকেই হ্যান্ডমেড বা হোমমেড খাবার পছন্দ করে থাকে, এ ধরনের খাবারের চাহিদা দিন দিন বৃদ্ধি পাচ্ছে।

৪. ই-কমার্স দক্ষতা শেখানো
আপনি অনলাইনে বিভিন্ন প্ল্যাটফর্মে বিপণি করতে এবং অনলাইন কোর্সের মাধ্যমে হোম-বেসড ই-কমার্স দক্ষতা শেখাতে পারেন। এটি সময়ের সাথে মিলিয়ে তাদের বিক্রয় বাড়িয়ে তুলতে সাহায্য করতে পারে।

৫. ফটোগ্রাফি সেবা

আপনি যদি ফটোগ্রাফির শখে প্রফেশনাল হোন, তাদের সেবা প্রদান করার জন্য দরকারি সামগ্রী নিয়ে একটি ছোট ব্যবসা শুরু করতে পারেন। বিশেষত, প্রস্তুতি থাকতে পারেন ছবি সম্পাদনা বা অলকার কাজে।

৬. ভিন্ন ধরণের ক্যান্ডি তৈরি
আপনি হোমমেড ক্যান্ডি বা মিষ্টি তৈরি করে স্থানীয় বাজারে বিক্রয় করতে পারেন। মিষ্টির প্রেমিকদের জন্য অসীম সম্ভাবনা আছে!

৭. গার্ডেনিং সাধারণ টিপস
আপনি অল্প মূল্যে একটি গার্ডেনিং সাধারিত সামগ্রী সরবরাহ করতে পারেন, যা স্থানীয় লোকদের জন্য উপযোগী হতে পারে। এটি প্রস্তুতি থাকতে পারে ফুল, সজানো গাছ, বা ছোট বৃক্ষ।

৮. ক্যান্ডল তৈরি
আপনি স্বয়ংক্রিয়াভাবে ক্যান্ডল তৈরি করতে পারেন এবং তাদের বাজারে বিক্রয় করতে পারেন। হাতেমধুর সাথে মিলিয়ে আপনি বিভিন্ন রং এবং গন্ধের ক্যান্ডল তৈরি করতে পারেন।

৯. দোকানে দুধ প্রদান
আপনি হোমমেড দুধ বা দুধ পণ্য তৈরি করে তাদের স্থানীয় বাজারে বিক্রয় করতে পারেন। এটি স্থানীয় কৃষকদের পণ্যগুলি পূর্ণতা এবং প্রাকৃতিকভাবে উৎপাদন করা যাবে তা নিশ্চিত করতে সাহায্য করতে পারে।

১০. মোবাইল রিপেয়ার সেবা
আপনি মোবাইল এবং অন্যান্য ইলেক্ট্রনিক্স ডিভাইস মেন্টেনেন্স এবং রিপেয়ার করার জন্য একটি ছোট কারখানা শুরু করতে পারেন। এটি অল্প খরচে একটি কারিগরের সাথে শুরু করা যেতে পারে।

The 100 Best Business Ideas in Bangladesh 2024

Business Boom: Discover the Top 10 fast growing business in bangladesh

ফ্রিল্যান্সিং এ ১০ টি সহজ কাজ যা করে সফল হওয়া যায়